Yoono: সামাজিক যোগাযোগের সকল ওয়েবসাইট ব্যবহার করুন একই স্থান থেকে

সামাজিক যোগাযোগের বিভিন্ন ওয়েবসাইট সমূহ বেশ দ্রুত জনপ্রিয়তা পাচ্ছে। নিয়মিত ইন্টারনেট ব্যবহারকারীরা তো আছেনই সেই সাথে এই ধরনের নেটওয়ার্কে যুক্ত হতে নতুন ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যাও বাড়ছে। আর প্রায় প্রত্যেকেই ফেইসবুক(www.facebook.com ), টুইটার(www.twitter.com ), লিংকড ইন(www.linked.com ), ফ্লিকার(www.flickr.com ), এমএসএন, ইয়াহু, গুগলের মত একাধিক নেটওয়ার্ক ব্যবহার করে বন্ধুদের সাথে যুক্ত থাকতে চেষ্টা করেন।

যে কোন আপডেট দেখা নতুন স্ট্যাটাস দেয়া নতুন বার্তা বা নোটিফিকেশন দেখার বেশ সময় সাপেক্ষ ব্যাপার। সেদিক থেকে এদের ডেক্সটপ ক্লায়েন্টসমূহ এই সময় অনেকটাই বাচিয়ে দেয়। তবে একাধিক নেটওয়ার্কের ডেক্সটপ ক্লায়েন্ট বিস্তারিত পড়ুন

ম্যাসেঞ্জার থেকে ফেসবুক চ্যাট [pidgin.im]

ইন্টারনেটে তাত্ক্ষণিক বার্তা আদানপ্রদানের যে সফটওয়্যারগুলো (মেসেঞ্জার) আছে, সেসবেরই প্রায় সবগুলোর কাজই করা যাবে পিজিন (www.pidgin.im) থেকে। ইয়াহু, এমএসএন, গুগলটকের মতো জনপ্রিয় প্রায় সব মেসেঞ্জারের বিকল্প হিসেবেই এটি ব্যবহার করা যায়। পিজিনের বিশেষ সুবিধা হলো, এটিতে একই সঙ্গে একাধিক অ্যাকাউন্টে ঢুকে বার্তা আদানপ্রদান করা যায়।যেমন—ইয়াহু, গুগল বা এমএসএনের একাধিক অ্যাকাউন্ট একই সঙ্গে ব্যবহার করা যাবে এখানে। সেই সঙ্গে ব্যবহার করা যাবে ফেসবুকের চ্যাট অপশনটিও। পিজিনে এমনিতে ফেসবুক চ্যাটের সুবিধা সরাসরি না থাকলেও ছোট একটি প্রোগ্রামের (প্লাগইন) মাধ্যমে এটি ব্যবহার করা যাবে। উইন্ডোজ বা লিনাক্স দুই ধরনের অপারেটিং সিস্টেমে ইনস্টল করা যাবে এই প্রোগ্রামটি।
এটি পাওয়া যাবে http://code.google.com/p/pidgin-facebookchat ঠিকানার ওয়েবসাইটে।ব্যবহারকারীর কম্পিউটারের উপযোগী সংস্করণটি নামিয়ে সেটি ইনস্টল করে নিতে হবে।
ইনস্টল করার পর পিজিন চালু করতে হবে। Accounts>>Manage Accounts নির্বাচন করলে নতুন অ্যাকাউন্ট যুক্ত করার অপশন পাওয়া যাবে। সেখানে অফ বাটনটি চাপলে অ্যাকাউন্ট যোগ করার একটি উইন্ডো দেখা যাবে। এখানে অ্যাকাউন্টের ধরন, ব্যবহারকারীর নাম ও পাসওয়ার্ড লিখতে হয়। ফেসবুক চ্যাট চালু করার জন্য এই উইন্ডোতে Protocol-এর পাশে Facebook এবং Username, Password-এর স্থানে ইমেইল ঠিকানা ও পাসওয়ার্ড লিখতে হবে। মেসেঞ্জার থেকেই ফেসবুকের স্ট্যাটাস পরিবর্তন করা যাবে। Accounts থেকে Facebook অ্যাকাউন্টটিতে ক্লিক করা হলে Set Facebook status নামের অপশনটি পাওয়া যাবে।

অফলাইনে থেকেই দেখুন ফেসবুকের অনলাইন বন্ধুদের

ইয়াহু, এমএসএন বা জিমেইলের মত মেসেঞ্জারে অবস্থা Available থেকে Away, Invisible, বা অফলাইন এ পরিবর্তন করা যায়। চ্যাটা করার সময় এগুলি ব্যবহার করে বিশেষ কিছু সুবিধাও পাওয়া যায়। যেমন Invisible মোডে থাকার সময় আপনি অনলাইনে থেকে অন্যদের অবস্থা দেখতে পাওয়া যায়। কিন্তু অন্যরা বুজতে পারবে না যে আপনি অনলাইনে রয়েছেন। কারণ এই মোডে রয়েছে এমন কোন ব্যবহারকারীকে অন্যান্য ব্যবহারকরীরা অফলাইন হিসাবে দেখতে পায়। ফেসবুক এ চ্যাট করার সময় এমন কোন অপশন পাওয়া যায় না। এখানে কেবলমাত্র অনলাইন এবং অফলাইন নামে দুটি মোড থাকে। অনলাইনে থাকলে সবাই আপনাকে দেখতে পারবে এবং অফলাইনে থাকলে চ্যাট অপশনটি ব্যবহার করা যায় না। ফেসবুকের Online Now (http://www.facebook.com/apps/application.php?id=29197096351) অ্যাপলিকেশনটি Invisible মোড এর মত কাজ করে। এটি ব্যবহার করে অফলাইনে থাকা কোন ব্যবহারকারী সহজেই জানতে পারবেন অন্য কোন ব্যবহারকারী বিস্তারিত পড়ুন

ফেসবুকের নতুন ছবি আপলোডের টুল

 

ফেসবুক ছবি আপলোডের জন্য নতুন একটি টুল তৈরী করেছে। পরীক্ষামূলক পর্যায়ে থাকলেও ফেসবুব্যবহারকারীদের জন্য এটি উন্মুক্ত করে দেয়া হয়েছে। ছবি আপলোডের আগের টুলগুলির তুলনায় এটি অনেক বেশী কার্যকর। এর মাধ্যমে ছবি খুব সহজে ও দ্রুততার সাথে আপলোড করা যায়। বর্তমানে ফেসবুকে প্রায় ৮০০০ কোটি ছবি রয়েছে এবং প্রতি মাসে প্রায় ২০০ কোটি অতিরিক্ত ছবি যুক্ত করা হচ্ছে। ফেসবুক থেকে পরিচালিত একটি জরিপে দেখা যায় যে ফেসবুকের টুলগুলির মধ্যে ছবি আপলোডারটি টুলটি সবথেকে বেশী কম জনপ্রিয়। এখনে বেশ কিছু বাগ রয়েছে যার ফলে ব্যবহারকরীদের প্রায় সময়ই সমস্যার সম্মুখীন বিস্তারিত পড়ুন

পছন্দমত ফেইসবুক বৃত্তান্ত পাতার ঠিকানা ব্যবহার

ফেইসবুক ব্যবহারকারীর বৃত্তান্ত পাতার ঠিকানা পছন্দমত বেছে নেয়ার সুযোগে দেয়া হয়েছে । আগে বৃত্তান্ত পাতার ঠিকানা সয়ংক্রিয়ভাবে তৈরী হয়ে যেত www.facebook.com/এর পর কিছু নম্বর ব্যবহার করে। মূলত এখন username তৈরী করার মাধ্যমে এটি পরিবর্তন করা যায়। এই তৈরী করা হলে ব্যবহারকারী বৃত্তান্ত পাতার ঠিকানাটি পরিবর্তিত হয়ে http://www.facebook.com/<username&gt; এর মত হবে। সরাসরি ব্যবহারকারীর বৃত্তান্ত দেখা বা সার্চ ইঞ্জিনের মাধ্যমে খুজে পাওয়ার কাজটি আরও সহজ করে দেবে এই username। তবে এখানেও গোপনীয়তা নিয়ন্ত্রণের অপশন ব্যবহার করা যাবে ফেসবুকের অন্যান্য অংশের মত। অনুসন্ধান সংক্রান্ত গোপনীয়তা পরিবর্তন করতে দেখুন এখানে http://www.facebook.com/settings/?tab=privacy#!/settings/?tab=privacy&section=search

নতুন ইউজারনেম তৈরী করার ঠিকানা হল বিস্তারিত পড়ুন